‘সিইসির বক্তব্য বিএনপিকে নির্বাচনে আনার কৌশল’

0

 সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির সঙ্গে সংলাপে প্রধান নির্বাচন কমিশনার রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা বলেছেন কি না নিশ্চিত হতে চান তাঁরা।কাদের বলেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) যদি সে কথা বলেও থাকেন, তবে তা বিএনপিকে নির্বাচনে আনার কৌশলও হতে পারে।

আজ সোমবার রাজধানীতে বিশ্ব খাদ্য দিবসের আলোচনায় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের এসব কথা বলেন। গতকাল রোববার নির্বাচন কমিশনের সংলাপে অংশ নেয় বিএনপি। সংলাপে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নুরুল হুদা তাঁর লিখিত বক্তব্যে- প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা হিসেবে উল্লেখ করেন। তবে তিনি সত্যিই এ কথা বলেছেন কি না, তা নিশ্চিত হতে চায় আওয়ামী লীগ।

এ ব্যাপারে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘উনি (সিইসি) কোনো প্রেস ব্রিফিং করেননি। উনি ভেতরে বলেছেন, এটা আমাদের কনফার্ম (নিশ্চিত) হতে হবে। আমরা একটু নিশ্চিত হব, তিনি আসলে কী বলেছেন। আমাদের তাঁর সঙ্গে আসার কৌশলও হতে পারে।নির্বাচন কমিশনের কাছে কোনো বিশেষ সুবিধা চায় না জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ চায় একটি নিরপেক্ষ নির্বাচন।সেতুমন্ত্রী আরো বলেন, বিএনপিও খুব আশাবাদী হয়ে পড়েছে এবং খুব খুশি খুশি ভাব। মির্জা ফখরুল ইসলামের বিষণ্ণ মুখে হঠাৎ হাসির রেখা ফুটে উঠেছে।বিএনপির এই আশাবাদী ভাবটা যেন নির্বাচন পর্যন্ত বজায় থাকে সে কথাও বলেন কাদের।

অন্যদিকে কুষ্টিয়ায় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ বলেছেন, বিএনপির প্রস্তাব অনুযায়ী সংসদ ভেঙে দিয়ে সরকার গঠন করার বিষয়টি সংবিধান পরিপন্থী।হানিফ বলেন, সংসদ ভেঙে দিয়ে সরকার গঠন করা সংবিধানে নেই। সংবিধানের বাইরে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই বলেও উল্লেখ করেন তিনি। সংবিধানের মধ্য থেকেই বিএনপিকে আগামী নির্বাচনে অংশ নিতে হবে  বলে জানান হানিফ।এ ছাড়া বিএনপি ষড়যন্ত্র এবং কারচুপির নির্বাচন করতে চায় তাই ইভিএম চাচ্ছে না বলেও মন্তব্য করেন হানিফ।

Share.

Leave A Reply